সম্প্রতি ভারতে আবিষ্কৃত করোনা ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়ছে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে। এখনও পর্যন্ত ৪৪টি দেশে এই ভ্যারিয়েন্ট পাওয়া গেছে এমন আভাস পাওয়া যাচ্ছে। জাতিসংঘের স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে অক্টোবরে ভারতে করোনার B.1.617 ভ্যারিয়েন্ট পাওয়া যায়।

তারপর থেকে এখনও পর্যন্ত বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (WHO) আওতাভুক্ত ৪৪টি দেশে এই ভ্যারিয়েন্ট পাওয়া গেছে। ওপেন অ্যাক্সেস ডেটাবেসে ৪ হাজার ৫০০টি নমুনা আপলোড করা হয়েছে। এছাড়া বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা আরও ৫টি দেশ থেকে এই ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হওয়ার রিপোর্টও পেয়েছে। ভারতের বাইরে সবচেয়ে বেশি এই ভ্যারিয়েন্ট পাওয়া গিয়েছে ব্রিটেনে। এই সপ্তাহের গোড়ার দিকে এই ভ্যারিয়েন্টের বিষয়ে WHO জানায় B.1.617 ভ্যারিয়েন্ট গোটা বিশ্বের জন্য চিন্তার বিষয়। ভারতের পাশাপাশি ব্রিটেন, ব্রাজিল ও দক্ষিণ আফ্রিকাতে করোনার নতুন নতুন ভ্যারিয়েন্টের হদিশ মিলেছে। এগুলির প্রতিটিই আগের করোনা ভ্য়ারিয়েন্টের চেয়ে অনেক বেশি ভয়ঙ্কর। কারণ এগুলি দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে। এর মৃত্যুহার বেশি।

বুধবার বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে B.1.617 ভ্যারিয়েন্টের ছড়িয়ে পড়ার প্রবণতা বেশি। প্রাথমিক প্রমাণের ভিত্তিতে WHO জানিয়েছে যে B.1.617 এর বিস্তার, অন্যান্য আরও সংক্রমণযোগ্য ভ্যারিয়েন্টগুলির পাশাপাশি মৃত্যুর হার বাড়িয়ে তোলে। ১৩০ কোটির দেশ ভারত হল আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের পরে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম সংক্রামিত দেশ। এখানে বর্তমানে প্রায় প্রতিদিন ৩ লক্ষেরও বেশি নতুন কেস রেকর্ড করা হচ্ছে। নতুন এই ভ্যারিয়েন্টের ফলে রাজধানী দিল্লি এবং আর্থিক কেন্দ্র মুম্বই সহ বড় শহরগুলি বিধ্বস্ত হয়েছে। হাসপাতালগুলির অবস্থাও খারাপ। অক্সিজেন এবং শয্যার সংকট গুরুতর হয়ে উঠেছে। ভারতে এত ব্যপক হারে করোনা বিস্তারের জন্য কয়েকটি ধর্মীয় ও রাজনৈতিক জনসমাগমকে দায়ি করেছে WHO।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বিজ্ঞানী মারিয়া ভ্যান কেরকোভ বলেন, B.1.617 যে দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে তার কিছু তথ্য পাওয়া গেছে। প্রাথমিক অধ্যয়নের দিকে ইঙ্গিত করে তিনি এও বলেছেন কিছু ক্ষেত্রে এই সংক্রমণ খানিকটা হলেও হ্রাস পেয়েছে। তবে এই ভ্যারিয়েন্ট গোটা বিশ্বের জন্য চিন্তার। মঙ্গলবার WHO-এর পক্ষ থেকে সাপ্তাহিক মহামারী বিষয়ক আপডেটে এই সংক্রান্ত তথ্য দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। তবে B.1.617 ভ্যারিয়েন্ট যেভাবে দ্রুততার সঙ্গে ছড়িয়ে পড়ছে তা-ই মূলত WHO এর চিন্তার কারণ। সমগ্র বিশ্বের ক্ষেত্রেও এটি চিন্তার বিষয়/কলকাতা২৪/৭